ইউপি নির্বাচনকে ঘিরে নেতা শুন্য মহেশপুর,তদবীরে সবাই ঢাকায়

ইউপি নির্বাচনকে ঘিরে নেতা শুন্য মহেশপুর,তদবীরে সবাই ঢাকায়

রাজনীতি

শামীম খানঃ

আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন ঘিরে ক্ষমতাসীন দলের মাঠ পর্যায় থেকে শুরু করে উপজেলা পর্যায়ের সকল নেতায় ঢাকায় তদবীরে ব্যস্ত সময় পার করছেন। ঝিনাইদহ-৩ আসনের সংসদ সদস্য শফিকুল আজম খান চঞ্চল চাইছেন দলের নিবেদিত নেতারাই আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলীয় ভাবে মনোনয়ন পাক। সে জন্যই নেতাদের নিয়ে তিনি তদবীর চালিয়ে যাচ্ছেন।

এদিকে ঝিনাইদহ -৩ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ও কেন্দ্রীয় যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য নবী নেওয়াজ তিনিও তার পন্থি নেতাদের নিয়ে তদবীর চালিয়ে যাচ্ছেন। থেমে নেই উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি সাজ্জাদুল ইসলাম সাজ্জাদ,সাধারণ সম্পাদক মীর সুলতানুজ্জামান লিটনও। উপজেলা আওয়ামীলীগের প্রথম সারির নেতারা কেউই এলাকায় নেই। সব নেতাই রয়েছেন ঢাকায় তদবীরে ব্যস্ত।

শুক্রবার (১ অক্টোরব) মহেশপুর উপজেলা আওয়ামীলীগ কার্যলয় থেকে সম্ভব্য আওয়ামীলী দলীয় চেয়ারম্যান প্রার্থীরা দলীয় ফরম সংগ্রহ করেই পর দিন শনিবার থেকে ঢাকায় পাড়ি জমাতে শুরু করেন।

থেমে নেই বর্তমান ক্ষমতাসীন দলের ইউপি চেয়ারম্যানরাও। তারাও রয়েছে তদবীরে ব্যস্ত। ইতি মধ্যে কাজিরবেড় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সেলিম রেজা,বাঁশবাড়ীয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক আব্দুল মালেক,স্বরুপপুর ইউনিয়ন পরিষদের দু’বারের নির্বাচিত চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান,শ্যামকুড় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও আওয়ামীলীগ নেতা আমানউল্লা হক,

পান্তাপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের দু’বারের নির্বাচিত সফল চেয়ারম্যান আওয়ামীলীগ নেতা ইসমাইল হোসেন,ফতেপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি সিরাজুল ইসলাম সিরাজ,এস বি কে ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচিত সফল চেয়ারম্যান আওয়ামীলীগ নেতা আরিফান হাসান চৌধুরী নুথান,নেপা ইউনিয়ন পরিষদের দু’বারের নির্বাচিত চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি সামছুল আলম মৃধাসহ দলীয় সকল চেয়ারম্যানরা রয়েছে তদবীরে ব্যস্ত।

ঝিনাইদহের মহেশপুরে আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলীয় ফরম সংগ্রহকারী ৬০ জন নতুন মুখের নেতারাও রয়েছেন ঢাকায় তদবীরে ব্যস্ত। ফলে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন ঘিরে ক্ষমতাসীন দলের মাঠ পর্যায় থেকে শুরু করে উপজেলা পর্যায়ের সকল নেতা ঢাকায় তদবীরে ব্যস্ত সময় পার করায় নেতা শুন্য হয়ে পড়েছে মহেশপুর।

কাজিরবেড় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সেলিম রেজা জানান, নৌকা প্রতিক নিয়ে বিপুল ভোটে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছি। এলাকারও উন্নয়ন করেছি দেখার মতো। যা অনেক ইউনিয়নের চেয়ারম্যানরা করতে পারেনি। তাই দল এবারও আমাকে দলীয় মনোনয়ন (নৌকা প্রতিক) দেবেন।

মান্দারবাড়ীয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সফল সভাপতি সমাজ সেবক হারুন আর রশিদ জানান, এলাকার উন্নয়ন ধরে রাখতে ও অসহায় দলীয় নেতা কর্মীদের পাশে থাকার কারনেই আশাবাদি দল আমাকে দলীয় মনোনয়ন (নৌকা প্রতিক) দেবেন।

উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি সাজ্জাদুল ইসলাম সাজ্জাদ জানান, দলীয় ভাবে কয়েক দিনের মধ্যেই ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যানদের দলীয় মনোনয়ন দেবে। সে জন্যই দলীয় নেতা কর্মীদের নিয়ে ঢাকায় এসেছি। তিনি আরো জানান, ৭,৮ও ৯ তারিখে মনোনয়ন বোর্ড বসবে। তার পরে সিন্ধান্ত হবে কবে ঝিনাইদহ জেলার দলীয় চেয়ারম্যান প্রার্থীদের মনোনয়ন দেবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *