কোটচাঁদপুরে “একুশ নিউজ ২৪ ডট কম” এর ১ম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

Spread the love
  • 29
    Shares

কোটচাঁদপুর (ঝিনাইদহ) প্রতিনিধি:

ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুরে জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল একুশে বাংলার রূপ ‘একুশ নিউজ ২৪ ডট কম’ এর ১ম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রবিবার সন্ধ্যায় কোটচাঁদপুর মেইন বাজারে অবস্থিত বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় প্রেসক্লাব কোটচাঁদপুর উপজেলা শাখার অস্থায়ী কার্যালয়ে এ প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত করা হয়।

প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী অনুষ্ঠানে ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুর প্রতিনিধি সুমন মালাকারের সভাপতিত্বে বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় প্রেসক্লাব কোটচাঁদপুর উপজেলা শাখার সাধারন সম্পাদক ও আলোকিত বাংলাদেশ পত্রিকার প্রতিনিধি এস.এম রায়হান উদ্দীনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কোটচাঁদপুর উপজেলার নির্বাহী অফিসার নাজনীন সুলতানা।

এ সময় বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা মুন্সী ফিরোজা সুলতানা, সিনিয়র সাংবাদিক দৈনিক কল্যণ পত্রিকার প্রতিনিধি কামাল হাওলাদার, কোটচাঁদপুর পৌর যুবলীগের সাধারন সম্পাদক শেখ সোহেল আরমান, সাবেক সভাপতি, জেলা যুবলীগের সদস্য ও আসন্ন কোটচাঁদপুর উপজেলা নির্বাচনের ভাইস চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী রিয়াজ হোসেন ফারুক, কোটচাঁদপুর উপজেলা শাখা ছাত্রলীগের সাবেক আহ্বায়ক এনায়েত উল্লাহ সৈকত।

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় প্রেসক্লাব কোটচাঁদপুর উপজেলা শাখার সভাপতি আজিজুল হক, সহ-সভাপতি জুলফিকার আলী, প্রচার সম্পাদক সাইফুদ্দীন আহাম্মেদ, নির্বাহী সদস্য আল-ইমরান, সদস্য তবিবুর রহমান, জাতীয় অর্থনীতির চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি মামুনুর রশীদ প্রমুখ।

প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভায় জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল একুশে বাংলার রূপ ‘একুশ নিউজ ২৪ ডট কম’ এর ১ম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে পত্রিকাটির মঙ্গল ও এ প্রতিষ্ঠানের সার্বাঙ্গীন সফলতা কামনা করেন। এছাড়াও অল্পদিনে পত্রিকাটি ব্যপক ভাবে সাড়া ফেলেছেন অন্য সব নিউজ পোর্টাল এর থেকে।

তিনি আরও বলেন, বস্তুনিষ্ঠ সাংবাদিকতা ও নিরপেক্ষ তথ্য পরিবেশনের মাধ্যমে দেশ ও জাতিকে সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে। গণমাধ্যম ও গণমাধ্যমকর্মীদের জন্য সংবাদের বস্তুনিষ্ঠতা সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। আশাকরি আপনারা বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশনের মাধ্যমে দেশ ও জাতির কল্যাণে সবাই একসাথে কাজ করে যাবেন। আলোচনা সভা শেষে কেক কেটা হয়। পরে উপস্থিত অতিথিরা একে অপরকে কেক খাইয়ে দেন।                                         

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

x